অনুগ্রহ করে অপেক্ষা করুন...

al-ihsan.net
বাংলা | English

বিশেষ প্রতিবেদন - ১৬ জানুয়ারী, ২০১৭
 
যুদ্ধাপরাধের বিচার-১৩: ছাত্রসংঘের ৪৭ কর্মী নিয়ে আল-বাদরের যাত্রা শুরু
আল ইহসান ডেস্ক:

পাকিস্তানের আদর্শের প্রতি দৃঢ়ভাবে অটল এবং অভ্যন্তরীণ বা বহিরাক্রমণের বিরুদ্ধে যুদ্ধ করতে আল-বাদর বাহিনী গঠন করা হয়। পাকিস্তানী সেনাবাহিনীকে সহায়তার পাশাপাশি এই সংগঠন বুদ্ধিজীবী হত্যার নীলনকশা প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন করে। রাজাকার বাহিনীর উপর নির্ভর না করে এই আল-বাদর বাহিনী গঠন করা হয়। প্রথম পর্যায়ে ছাত্রসংঘের ৪৭ কর্মীকে নিয়ে এই সংগঠনের যাত্রা শুরু হয়। পরবর্তীতে সারাদেশে এরা বিস্তার লাভ করে। আল-বাদর বাহিনীর আবির্ভাব হবার পর ৫ দফা কর্মসূচী গ্রহণ করে। মালানা মতিউর রহমান নিজামীকে এই বাহিনীর প্রধান করা হয়। পরবর্তীতে এর দায়িত্ব গ্রহণ করে আলী আহসান মুজাহিদ। জামাতের সাবেক আমীর গো’আযমের অভিযোগপত্র থেকে এ তথ্য জানা গেছে। পাকিস্তানী সেনাবাহিনীর পূর্বাঞ্চলীয় কমান্ডার এএকে নিয়াজীর বক্তব্য থেকে জানা যায়, তারা (আল-বাদর বাহিনী) যুদ্ধের সময় পাকিস্তানী বাহিনীকে সর্বোতভাবে সাহায্য করেছে। ১৯৭১ সালের ১৫ মে ঢাকায় জামাতের ছাত্রসংঘের প্রাদেশিক মজলিশে শূরা ছাত্রসংঘের কর্মীদের নিয়ে পৃথক রাজাকার ফোর্স গঠনের প্রস্তাব পেশ করে। তথাপি পাকিস্তানী সেনাবাহিনীর ইস্টার্ন কমান্ড সে প্রস্তাব লালফিতায় পর্যবসিত করে রাখে। তবে পাকিস্তান সেনাবাহিনীর ভেতর এমন কিছু অফিসার ছিল, যারা তদের সহযোগী বাহিনী শান্তিকমিটি এবং রাজাকার বাহিনীর কর্মকা-ের প্রেক্ষিতে নিজেদের মতো বিকল্প সম্ভাবনার বিষয়ে চিন্তাভাবনা করছিল। বালুচ রেজিমেন্টের তরুণ মেজর রিয়াজ হুসেন মালেক তাদের মধ্যে একজন। সবার আগেই সে ওই পথে ইতিবাচক পদক্ষেপ গ্রহণ করে। রাজাকার বাহিনীর প্রতি পুরোপুরি আস্থা না রেখে এই আল-বাদর বাহিনী গঠন করা হয়। আল-বাদরের প্রথম কমান্ডার ছিলো কামরান। সে বিজ্ঞান বিভাগে উচ্চ মাধ্যমিকের ছাত্র ছিল। বালুচ রেজিমেন্টের মেজর রিয়াজ হুসেইন মালেক একটি সাক্ষাতকারে বলে যে, শত্রুরা সংখ্যায় ছিল বেশি। নৈরাজ্য সৃষ্টিকারীগোষ্ঠীও অপ্রতুল ছিল না। আমাদের খবরা-খবর জানার মাধ্যম ছিল না বললেই চলে। আর অস্ত্রশস্ত্রের যোগান ছিল অনিয়মিত। আমাদের জওয়ানরা বাংলা ভাষার আর বাংলার প্রাকৃতিক পরিবেশের সঙ্গে মোটেও পরিচিত ছিল না। কেননা আমাদের প্রশিক্ষণের সময় এহেন পরিস্থিতির সম্ভাবনার কথা কখনো ভাবা হয়নি। এমতাবস্থায় দেশের প্রতিরক্ষার দায়িত্ব পালন করা অতীব দুষ্কর হয়ে পড়েছিল। পাকিস্তানের ঐক্য রক্ষার উদ্দেশ্যে আমাদের একটি আন্তরিক নির্ভরযোগ্য দেশপ্রেমিক বাঙালিগোষ্ঠীর প্রয়োজন ছিল। যারা পাকিস্তানের ঐক্য রক্ষার লক্ষ্যে আমাদের সঙ্গে কাঁধে কাঁধ মিলিয়ে কাজ করতে পারবে।







For the satisfaction of Mamduh Hazrat Murshid Qeebla Mudda Jilluhul Aali
Site designed & developed by Muhammad Shohel Iqbal